ঔষধ কোম্পানীর এসব মার্কেটিং লোকদের ছবি তুলতে চাইলে ছবি তুলতে দিবেন না!!

হরহামেসাই আমরা এই দৃশ্য দেখতে পাই। ডাক্তারের চেম্বার থেকে বের হতে না হতেই আপনার সামনে দাঁড়িয়ে অতি বিনয়ের সাথে আপনার ব্যবস্থাপত্র দেখতে চাইবে। জুতা জামা পরে ভদ্র মানুষ গুলো ব্যাবস্থাপত্রের ছবি তুলে রাখেন।

আমরাও নীরবে না বুঝেই তাদের সহায়তা করে যাই। কিন্তু কেন এই ছবিতোলা তার প্রকৃত কারণ কি? প্রকৃত পক্ষে তাদের কোম্পানির কয়টি ওষুধ ডাক্তার সাহেব লিখেছেন এটা তার প্রমাণ।

পরবর্তিতে হয়তোবা ডাক্তারকে এর জন্য জবাবদিহি করতে হতে পারে। এক্ষেত্রে রোগীদের প্রকৃত চিকিৎসা গৌণ ওষুধ লেখাই মূখ্য। কখনো কখনো চিকিৎসক তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে অতিরিক্ত ওষুধ লিখতে বাধ্য হয়।

ফলে আমরা প্রকৃত চিকিৎসা বঞ্চিত হচ্ছি প্রতিনিয়ত। বাধ্য হচ্ছি অপ্রয়োজনীয় অবাঞ্চিত অথবা নিম্নমানের ঔষধ কিনে খেতে। নতুন ডিজিটাল এই জনস্বার্থ বিরোধী কর্মকান্ড থেকে আমাদের সকলের সচেতন হওয়া প্রয়োজন।