সিনহা রাশেদ নি’হতের ঘটনায় ৯ জনকে আ’সামী করে মা’মলা

পুলিশের গু’লিতে সাবেক সেনা কর্মকর্তা মেজর সিনহা রাশেদ নি’হতের ঘটনায় মা’মলা কক্সবাজার জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মা’মলা করেছেন তার বড় বোন শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস।

মা’মলায় প্রধান আ’সামি করা হয়েছে বাহারছড়া ত’দন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) লিয়াকতকে। টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ নয়জনকে মা’মলায় আ’সামি করা হয়েছে।

আদালত মা’মলাটি এজাহার হিসেবে গ্রহণ করার নির্দেশ দিয়েছেন। মা’মলার আইনজীবী সাং’বাদিকদের জানান, আদালত মা’মলাটি র‍্যাবকে সুপারভাইজ করতে বলেছেন। সেইসঙ্গে সাত দিনের মধ্যে মা’মলার কী কার্যক্রম নেওয়া হয়েছে,

আদালতকে অবহিত করতে নির্দেশ দিয়েছেন।গত শুক্রবার (৩১ আগস্ট) রাত ১০টার দিকে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রা’ইভের বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গু’লিতে নি’হত হন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মেজর (অব.) সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান।