কোরবানির ‘ষাঁড়ের পেটে’ বাছুর! গাভী নয় ষাঁড়ের পেটে ……… বিস্তারিত

ঠাকুরগাঁওয়ে কোরবানি দেয়া ষাঁড়ের পেটে বাচ্চা পাওয়া যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় হ’তবাক স্থানীয়রা। শনিবার (০১ আগস্ট) জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার কোষারানীগঞ্জ ইউনিয়নের আকাশীল গ্রামের মোজাম্মেল নামে এক ব্যক্তির বাসায়

ষাঁড়টি কোরবানি দেয়ার পর পেটের ভেতর থেকে গরুর বাছুরটি পাওয়া যায়। এ নিয়ে এলাকায় হৈ চৈ শুরু হয়। আশপাশের লোকজন ভিড় জমায় ওই বাড়িতে। মোজাম্মেল হক জানায়,

ওই উপজেলার দলপতিপুর আইয়ুব আলীর কাছ থেকে তেষট্টি (৬৩০০০) হাজার টাকা মূল্যে কোরবানির জন্য ষাঁড়টি ক্রয় করেন তিনি। পরে আজ সকালে ষাঁড়টি জ’বাই করে। পরে ভুঁড়ি পরিষ্কার করতে গেলে ভেতর থেকে একটি বাছুর বের হয়ে আসে।

আসলে এ ধরনের ঘটনা কখনো শোনা যায়নি বলে জানান তিনি। ষাঁড়ের পেটে বাছুরের খবর মুহূর্তে এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে বাছুরটি এক নজর দেখতে।

স্থানীয়রা জানায়, গাভী হলে বিষয়টি বিশ্বাসযোগ্য মনে হতো কিন্তু ষাঁড়ের পেটে বাছুর সত্যিই মানুষকে অবাক করেছে। আমরা ভাবতে পারছি না এটা কি করে সম্ভব। আর এ বিষয়টি এলাকায় ছড়িয়ে পরলে উৎসুক জনতা ভিড় জমায় মোজাম্মেল হকের বাসায়।

উৎসুক জনতা বাচুর দেখার জন্য আশেপাশের এলাকা থেকে ও আসার কারনে মোজাম্মেল হকের বাসায় লোক সমাগম সরাতে হিমশিম খাচ্ছেন, অনেকে বলছেন এইটা একমাত্র আল্লাহ ই ভাল জানেন কারন ষাঁড়ের পেটে বাচ্ছা। এ বিষয়ে এর বাহিরা আর কোন তথ্য আমাদের কাছে আসলে আমরা আপনাদের জানিয়ে দিব। আমাদের সাথে থাকুন,আপনাদের সহযোগিতা ও পরামর্শ আমাদের পথ চলা। আমরা সব সময় নিউজের সত্যতা যাচাই বাচাই করার পর আপনাদের মাজে তুলে ধরি।