অস্ট্রেলিয়ার সংসদ নির্বাচনে লড়বেন ‘প্রথম’ বাংলাদেশি

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কোনো নারী প্রথমবারের মতো অস্ট্রেলিয়ার সংসদ নির্বাচনে অংশ গ্রহন করতে যাচ্ছেন। সাবরিন ফারুকি আগামী ২৩ মার্চ অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনে তিনি অস্ট্রেলিয়ান লেবার পার্টির (এএলপি) প্রার্থী হিসেবে লড়বেন। তিনি লড়বেন দেশটির নিউ সাউথ ওয়েলস (এসএসডব্লিউ) আইন পরিষদের একটি আসনে।

অস্ট্রেলিয়ান গণমাধ্যম সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। দেশটির দুই কক্ষবিশিষ্ট পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষ বলা হয় এসএসডব্লিউ পরিষদকে।

সাবরিনের বাংলাদেশে জন্ম গ্রহন করেন। পড়াশোনা করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। ২০০৪ সালে তিনি উচ্চশিক্ষার জন্য অস্ট্রেলিয়ার রাজধানী সিডনিতে যান। তিনি ইউনিভার্সিটি অব নিউ সাউথ ওয়েলস থেকে মাস্টার্স ডিগ্রি অর্জন করেন। আর ইউনিভার্সিটি অব সিডনি থেকে পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করেছেন। ২০০৮ সালে অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকত্ব পান সাবরিন।

সাবরিন সিডনি ইউনিভার্সিটি থেকে ‘সেরা গবেষণা শিক্ষার্থী পুরস্কার’ অর্জন করেন। গবেষণা কাজ অংশ হিসেবে তিনি বাংলাদেশের শিক্ষাব্যবস্থার জন্য বিভিন্ন বিষয় এবং সমাধান তুলে ধরেন।

অস্ট্রেলিয়ার সরকারি সেবায় যোগদান করার আগে সাবরিন সিডনি ইউনিভার্সিটিকে শিক্ষাবিদ হিসেবে কাজ করেন। তিনি অস্ট্রেলিয়ার ব্যুরো অব স্ট্যাটিস্টিক অ্যান্ড ফেয়ার ওয়ার্ক কমিশনে কাজ করেন। শ্রমিক কর্মী হিসেবে তিনি শরণার্থীদের জন্য একটি স্পষ্ট নীতিমালার পক্ষে পরামর্শ দেন।

বিভিন্ন সমাজকল্যাণ সংস্থা ও বাঙালি কমিউনিটি সংগঠনের সঙ্গেও কাজ করে যাচ্ছেন সাবরিন। একই সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ায় শরণার্থী ও নারীর ক্ষমতায়ন নিয়ে ‘শক্তি অস্ট্রেলিয়া’ এবং বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের সুবিধাবঞ্চিত নারীদের মানসিক স্বাস্থ্যসেবা দেয়ার জন্য অলাভজনক সংগঠন ‘সিতারাস স্টোরি’-এর সঙ্গেও কাজ করছেন সাবরিন ফারুকি