আ’পত্তি’কর ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর সদ্য ওএসডি জামালপুরের সাবেক জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীর ও এই অফিসের অফিস সহায়ক সানজিদা ইয়াসমিন সা’ধনার মধ্যে বিয়ে সম্পাদিত হয়েছে বলে গু’ঞ্জ’ন উঠেছে।

চাকরি হা’রানোর ভয়ে আহমেদ কবীর এমনটি করেছেন বলে আ’লোচনা চলছে বিভিন্ন মহলে। এছাড়া সাধনা আ’ত্মহ’ত্যা করেছেন বলে গতকাল সকালে গু’ঞ্জ’ন শুরু হয়। তবে এসব ত’থ্যের কোনো স’ত্য’তা খুঁজে পাওয়া যায়নি।

এ ব্যাপারে জানতে জামালপুরের সাবেক ডিসি আহমেদ কবীর ও অফিস সহায়ক সাধনার মোবাইল নম্বরে বারবার কল করা হলেও তাদের দু’জনের মোবাইল ফোন ব’ন্ধ পাওয়া যায়।

এদিকে ওইসব ত’থ্যে’র সত্যতা জানতে মঙ্গলবার একদল সাংবাদিক ছুটে যান জামালপুর শহরের বগাবাইদ এলাকায় সাধনার ভাড়া বাসায়। এ বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে সাধনার বা’বা খাজু মিয়া চ’মকে উঠে বলেন,

‘আপনেগরে কেডা খবর দিল? তিন দিনের ছুটি নিয়া আমার মেয়ে গ্রামের বাড়ি মাদারগঞ্জের সুখনগরীতে গেছে। আপনেরা যা শুনছেন তা সত্যি না।’

এমন সময় সাধনার মা নাছিমা আক্তার ঘর থেকে বেড়িয়ে রা’গান্বিত ক’ন্ঠে সাংবাদিকদের উদ্দেশ করে বলেন, ‘ওকে শেষ করার আর কি বা’কি রাখছেন। আমার মেয়ে এহনো ম’রেনি। ম’রার বেশি বাকিও নাই। এই সাধনার বাবা ওদের সাথে কি কও (বলছো)। এদিক আইসা পড়ো।’